সড়কের বাজারে অপ্রাপ্ত বয়স্ক বেপরোয়া চালক, রুখতে হবে তাদের

সড়কের বাজার ! সিলেটের কানাইঘাট উপজেলার ব্যবসা-বানিজ্য, ইতিহাস ঐতিহ্য সমৃদ্ধ গুরুত্বপূর্ণ একটি জনপদের নাম হচ্ছে সড়কের বাজার। জকিগঞ্জের ৩ নং কাজলশাহ ইউপি , কানাইঘাটের ৩নং দিঘিরপার পূর্ব ইউপি, ৪নং সাঁতবাক ইউপি ও ১ নং লক্ষিপ্রসাদ ইউপি’র মিলনস্থল সড়কের বাজার।

সড়কের বাজারে প্রায় চার থেকে পাঁচশত অটোরিকশা, রিকশা, হিউম্যান হালার, টমটম, মিশুক, পিকআপ,লেগুনা ও মাক্রোবাস রয়েছে। এসকল গাড়ির ড্রাইভার সহ নিয়মিত ও অনিয়মিত ড্রাইভার রয়েছেন প্রায় ১হাজার জনের মতো। এদের অধিকাংশ ড্রাইভারের বয়স পনের থেকে বিশ বছরের মধ্যে।
শিশু ও কিশোর বয়সের চালকদের ভরসায় হাতের মুঠোয় জীবন নিয়ে চলাচল করছেন সড়কের বাজার অঞ্চলের প্রায় লক্ষাধিক যাত্রী। অধিক লাভের আশায় শিশু-কিশোরদের দিয়ে কাজ করাচ্ছেন এসব গণপরিবহন মালিকরা। সংশ্লিষ্ট প্রশাসনের নাকের ডগায় এসব চললেও দেখার যেন কেউই নেই।

গতকাল কানাইঘাটের লন্তির মাটি গ্রামে যে মার্মান্তিক দূর্ঘটনা ঘটেছিলো তার জন্য অধিকাংশ দায়ী এই কমবয়সী অদক্ষ ড্রাইভার। যার কারনে মাতাব উদ্দিনের নিষ্পাপ ৮বছরের একটি ছেলে ও ৫ বছরের একটি মেয়ে শিশুকে জীবন দিতে হয়েছে। সাথে আরও দুইজন শিশু আহত হয়েছেন।

গণপরিবহনগুলোর বেশির ভাগই চলছে কিশোর বয়সের চালক দিয়ে। লোকাল অটোরিকশা , রিকশা , লেগুনা, মাইক্রোবাস এবং ব্যাটারিচালিত অটোরিকশা তুলে দেয়া হচ্ছে ১৪ থেকে ১৬ বছর বয়সীদের হাতে, যাদের কোনো প্রাতিষ্ঠানিক শিক্ষা ও লাইসেন্স থাকা তো দূরের কথা অভিজ্ঞতাও নেই।

কিশোর চালকরা রাস্তায় বেপরোয়া গাড়ি চালানোর কারণেই সড়কে প্রায়ই দুর্ঘটনা ঘটে। একে অপরের সঙ্গে পাল্লা দিতে গিয়ে ঘটাচ্ছে একের পর এক দুর্ঘটনা। এ অসুস্থ প্রতিযোগিতার কারণে অনেক নিরীহ মানুষ প্রাণ হারাচ্ছে। অদক্ষ কিশোর চালকের বেপরোয়া গাড়ি চালানোর কারণে বেশির ভাগ সময় দক্ষ এবং প্রশিক্ষিত গাড়ির চালকরাও দুর্ঘটনার শিকার হচ্ছেন।

শুধু অল্প পুঁজিতে অধিক মুনাফার লোভেই একশ্রেণীর পরিবহন মালিক এসব অদক্ষ কিশোর চালকদের হাতে যানবাহন তুলে দিচ্ছেন। এতে তারা একদিকে যেমন ওইসব কিশোরদের মৃত্যু ঝুঁকিতে ফেলে দিচ্ছেন, একই সঙ্গে অদক্ষ চালকদের ভুলে সড়কে ঘটছে দুর্ঘটনা, ঝড়ছে অসংখ্য প্রাণ।

সড়কের বাজারে ট্রাক, লেগুনা, অটোরিকশা, মাক্রোবাস এই চারটি শাখার অনুমোদন সড়ক পরিবহন ফেডারেশন থেকে রয়েছে। এসব শাখার সংশ্লিষ্ট দ্বায়িত্বশীল দের কাছে স্থানীয় অনেকে শিশু ও কিশোর ড্রাইভারদের অভিযোগ করলেও তোয়াক্কা করেনি সংগঠনের নেতৃবৃন্দ।

আমি সংশ্লিষ্ট দপ্তরের কাছে নিকট অনুরোধ করব আপনার অতিশীগ্রই সড়কের বাজারে অভিযান পরিচালনা করেন। এবং শিশু ও কিশোর ড্রাইভারদেরকে আইনের আওতায় নিয়ে আসুন।

লেখক
সমাজকর্মী

জকিগঞ্জ টাইমস/ এল টি

আপনার মতামত প্রদান করুন
  • 20
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
এ বিভাগের অন্যান্য