যুক্তরাষ্ট্রে নাগরিকত্ব পাচ্ছে ৪০ হাজার বাংলাদেশি

ডোনাল্ড ট্রাম্পের আরেকটি আমেরিকাবিরোধী পদক্ষেপকে বাতিল ঘোষণা করেছে নিউইয়র্কের ফেডারেল কোর্ট। শুক্রবার (০৪ ডিসেম্বর) নিউইয়র্কের ফেডারেল কোর্টের বিচারক এই আদেশ দেন। এতে সাবেক প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামার একটি নির্দেশ পুনর্বহাল হলো।

ফেডারেল কোর্টের ওই রায়ের ফলে সাড়ে আট লাখেরও অধিক তরুণ-তরুণীর আমেরিকায় স্থায়ীভাবে বসবাসের সুযোগ সৃষ্টি হলো। যাদের মধ্যে ৪০ হাজারের অধিক বাংলাদেশিও রয়েছেন। পাশাপাশি যেসব শিশু মা-বাবার সঙ্গে যুক্তরাষ্ট্রে আসার পর এখন পর্যন্ত বৈধ হতে পারেনি, তেমন অনূর্ধ্ব ৩০ বছর বয়সীদের ওয়ার্ক পারমিটের নবায়ন/দরখাস্ত করার সুযোগ অবারিত হলো।

গত ৪ ডিসেম্বর ইউএস ডিস্ট্রিক্ট কোর্টের জজ নিকলাস জি গ্যারোফিস ডেফার্ড অ্যাকশন ফর চাইল্ডহুড অ্যারাইভাল (ডেকা) প্রোগ্রাম বাতিলের জন্য ট্রাম্পের নির্বাহী আদেশকে বাতিল করেন। ২০১৭ সালের সেপ্টেম্বরে সেই আদেশ জারি করা হয়। আদালতের এই নির্দেশের ফলে আগের ওয়ার্ক পারমিট নবায়ন অথবা নতুন দরখাস্ত গ্রহণের জন্য হোমল্যান্ড সিকিউরিটি ডিপার্টমেন্ট ৭ ডিসেম্বরের মধ্যে সর্বসাধারণের জন্য একটি বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করবে।

এদিকে ইমিগ্র্যান্টদের অধিকার ও মর্যাদা নিয়ে লড়াইরত সংস্থাগুলোর কর্মকর্তারা নিউইয়র্ক ফেডারেল কোর্টের এই রায়কে স্বাগত জানিয়েছেন।

উল্লেখ্য, ৮ বছর আগে ২০১২ সালে জো বাইডেন যখন ভাইস প্রেসিডেন্ট ছিলেন, সে সময় প্রেসিডেন্ট ওবামা বিশেষ এক নির্দেশে এসব তরুণ-তরুণীকে ওয়ার্ক পারমিটের জন্য গ্রিন কার্ড দেয়ার নির্দেশ দেন। আর এই নির্দেশ অনুযায়ী সাড়ে ৬ লাখ তরুণ-তরুণী ওয়ার্ক পারমিটের আবেদন করেছিলেন।

জকিগঞ্জ টাইমস/আর এম/১৮

আপনার মতামত প্রদান করুন
  • 4
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
এ বিভাগের অন্যান্য