মামুন সুলতানের কবিতা `সমুদ্রের কোন বন্ধু নেই’

সমুদ্রের কোন বন্ধু নেই
মামুন সুলতান

সমুদ্র পাড়ে দাঁড়িয়ে আছি
দুঃসমুদ্র দুমড়ে মুচড়ে ডুবে যায়
কত দূর যায়; কত দূর?
তাতে আমার ঠাঁই নেই?
কত দূর যাও তুমি সমুদ্রডুবুরি
কত নীচে চলে যাও আহা কত দূর!

সমুদ্র পাড়ে দাঁড়িয়ে থাকি
ওই তো আকাশ ছুঁয়ে একটা ঢেউ আসছে
ওই তো নীলিমার মতো গুরুগম্ভীর প্রতিধ্বনি
চোখের দেখা কর্ণের কোহতুরে কী গভীর গর্জন
ঢেউ আমাকে ডাকে তার আসঙ্গ অস্তিত্বে
আমি তখন ভীষণ স্বার্থপর পৃথিবী হয়ে যাই।

সমুদ্রে আমার কোন বাড়ি নেই
তাহলে সমুদ্র কি একা? একাই করে তোলপাড়?
নাকি নিঃসঙ্গতা নিয়ে তার অসীম হাহাকার?
ওহে সমুদ্র ব্রাদার আমাকে সঙ্গে নিয়ে চলো
সমুদ্র হাত বাড়ালো
সকাতর সমুদ্র হা করলে উপকূল ডুবে যায়
ভয়ে গুটিয়ে নিলাম হাতের পাঁচ।

সমুদ্র পাড়েই আমি হাঁটতে যাই একাকী
জানি সমুদ্রের কোন বন্ধু নেই
বালুকণা গিলে গিলে
মাটির সংসারে আসে মাঝে মধ্যে
তখন পৃথ্বীতে চলে দশ নম্বর বিপদ সংকেত
আমার হাতের আঙ্গুলও দশ
দশে দশে নিতে চাই ফ্রেন্ডশিপ
হাত বাড়ানোর সাথে সাথে উপকূল ডুবিয়ে
সমুদ্র বন্ধুর জন্য উপহার দিলো এক জলাশয়।

সেই জলাশয়ের নাম বরিশাল-খুলনা
ওহে সমতল বাসী
চলুন ত দেখে আসি সাম্প্রতিক আম্পান এরিয়া।

আপনার মতামত প্রদান করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
এ বিভাগের অন্যান্য